মাংসে সসের ব্যবহারে স্বাদের ভিন্নতা

hot_sauces_harticleভোজনরসিকেরা পুজার সময় মাংসের স্বাদে চান ভিন্নতা। মাংসে সসের ব্যবহার খাবারের স্বাদে ভিন্নতা এনে দেয়—এমনটা বলেন বিশিষ্ট রন্ধনশিল্পীরা।

মাংস দিয়ে বিভিন্ন ধরনের খাবার তৈরি করা যায়। একই রকম মাংসে ভিন্ন ভিন্ন সসের ব্যবহারে এর স্বাদে চলে আসে ভিন্নতা। আর এই সস কেবল রান্না করা খাবারের সঙ্গেই নয়, হালকা সেঁকে, ঝলসে আবার কখনো রান্নার সময় ব্যবহার করে খাওয়া যায়।’
 ভিনিগার মাংস সেদ্ধ করতে এবং খাবারের স্বাদ বাড়াতে সাহায্য করে।
 অয়েস্টার সসও খাবারের স্বাদ বাড়ায়। খাবার রান্নার সময় এই সসের ব্যবহার হয়।
 ফিশ সস নাম হলেও মাংসের স্বাদ বাড়াতে ফিশ সসের জুড়ি নেই।tc
 বারবিকিউ সস বারবিকিউ রান্নাতে ব্যবহূত হয়।
 টার্টার সস কেনা ছাড়াও ঘরে বানিয়ে নেওয়া যায়। মেয়োনিজ, পেঁয়াজ মিহি কুচি, সবজি মিহি কুচি, ধনেপাতা কুচি একসঙ্গে মেখে কিছুক্ষণ রেখে দিলে মজাদার টার্টার সস তৈরি হয়ে যায়। রান্না মাংসের সঙ্গে এই সস খুব চলে।
 হলান্ডেইজ সস কিনতে পাওয়া যায়, যা সেদ্ধ বা ঝলসানো মাংসের সঙ্গে খেতে ভালো লাগে। ঘরে বসে তৈরি করতে চাইলে মাখন, লেবুর রস, সিরকা, ডিমের কুসুম আর লবণ একসঙ্গে একটা পাত্রে হালকা সেদ্ধ করতে হয়। আধা সেদ্ধ করতে একটা পাত্রে গরম জল দিয়ে অল্প করে তাপ প্রয়োগ করতে হয়। এভাবেই তৈরি করা যায় এই সস।
 হোয়াইট সসও মাংসের স্বাদ বাড়িয়ে দেয় বহুগুণ। এটি তৈরির জন্য মাখন, ময়দা, দুধ, লবণ, গোলমরিচ গুঁড়া, সিরকা সব উপাদান একসঙ্গে মেখে আধা সেদ্ধ করতে হয়।
 পিনাট বাটার সসও কষা  মাংসে ব্যবহার করা যায়।
 টমেটো সস বা ক্যাচাপ দিয়েও মাংস কষা করলে মাংসের স্বাদ বাড়ে।
 সয়াসসের ব্যবহার হয় মাংস রান্না করতে। তবে সয়াসসের রঙের ভিন্নতা রয়েছে। কালো এবং একটু হালকা রঙের সয়াসসও রয়েছে। যাঁরা খাবারের রঙে উজ্জ্বল ভাব আনতে চান, তাঁরা ব্যবহার করতে পারেন হালকা রঙের সস।
 চিলি সসেরও রকমফের রয়েছে। রেড চিলি আর গ্রিন চিলি সস। যাঁরা ঝাল খেতে পছন্দ করেন, তাঁদের জন্য চিলি সস ভালো। তবে এখানেও আছে রঙের ফারাক।
 মাংসের স্বাদে টক ভাব আনতে চাইলে তেঁতুলের সস ব্যবহার করতে পারেন।



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

one × five =

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.