কোভিড-১৯ এর সঙ্গে লড়তে কী খাবেন, কি খাবেন নাঃ চার্ট দিল কেন্দ্র সরকার

 

কোভিডের সঙ্গে লড়াই মোটেই সহজ ব্যাপার নয়। চিকিৎসকরা বলছেন, করোনা থেকে সেরে ওঠার পরেও বেশ কয়েক মাস একাধিক শারীরিক সমস্যা লক্ষ করা গিয়েছে। করোনা রোগীর তাই সঠিক ডায়েট অত্যন্ত জরুরি। তবে কোনটা সঠিক, কী খাবে আর কী খাবে না, এমন প্রশ্নে যখন জেরবার সকলে, ঠিক তখন হাতের সামনেই ডায়েট চার্ট তৈরি করে দিল কেন্দ্র। জানালো এই সময়ে কোন খাবার আপনার স্বাস্থ্যের পক্ষে উপযোগী।

সম্প্রতি কোভিড রোগীদের জন্য একটি ডায়েট চার্ট বানিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। Merovingian-র টুইটার হ্যান্ডেলে একটি খাদ্য়তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। সঙ্গে রয়েছে বিশেষজ্ঞের বেশ পরামর্শও। ট্যুইটে বলা হয়েছে, কোভিডের সময়ে পেশির পুনর্গঠন, রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে, শরীরের শক্তি ক্ষমতা ও এনার্জির মাত্রা ঠিক রাখতে রোজকার ডায়েট প্যাটার্নে বদল আনা জরুরি। তা হলেই কোভিডের বিরুদ্ধে লড়াই সহজ হবে।

কী কী রাখবেন আপনার প্রতিদিনের ডায়েটে, দেখে নিন

  • কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়েছে। রোজ সকালে দু-তিনটে করে আমন্ড খান। রাতে শুতে যাওয়ার সময় জলে ভিজিয়ে রাখুন আমন্ডগুলো। সকালে উঠে খালি পেটেই খেয়ে নিন সেগুলি।
  •  এরপর শরীরে সঠিক পরিমাণ পুষ্টির জোগান দিতে ব্রেকফাস্টে হোল গ্রেইন জাতীয় খাবার, যেমন রাগী বা ওটস রাখুন।
  • এই সময়ে শরীরে প্রয়োজন প্রচুর পরিমাণ প্রোটিনও। দুপুরের খাবারের পাতে তাই মাছ, মাংস, ডিম, সয়াবিন, বাদাম জাতীয় খাবার রাখার পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।
  • এ সময়ে ডাল জাতীয় খাবারও জরুরি। ৭০% শতাংশ কোকোযুক্ত ডার্ক চকোলেট এবং হলুদ দেওয়া দুধও প্রয়োজনীয়। দরকার প্রচুর পরিমাণে ফল-মূল।
  • রাতে খিচুরি খেতে পারেন। বেশকিছু সবজি সহযোগে খিচুরি রান্না করে নিন এতে শরীরে প্রয়োজনীয় পুষ্টি পৌঁছবে। 
  • এই সময়ে প্রচুর পরিমাণে জল খাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকরা। বাড়িতে তৈরি লেবুর সরবত বা যেকোনও ফলের সরবতও খেতে পারেন। 

মনে রাখতে হবে, ভাইরাসের সঙ্গে লড়াই করতে শারীরিকভাবে সুস্থ থাকতে প্রয়োজন। করোনায় আক্রান্ত হয়েছে এমন বেশিরভাগ রোগীর ক্ষেত্রেই দেখা গিয়েছে সেরে ওঠার পরেই দীর্ঘদিন দুর্বলতা কাটেনি। এই সময় তাই শারীরিক সক্ষমতার বাড়াতে সুষম খাদ্য অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। এতে পরবর্তীতে আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও বাড়বে। রোজ সকালে ফ্রি হ্যান্ড এক্সারসাইজ করতে পারেন। সারাদিন তরতাজা থাকবেন।  


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ